মঙ্গলবার, অক্টোবর ২২, ২০১৯

ডিয়ারবর্ণে ডাকাতি ও হত্যায় তিন কিশোর অভিযুক্ত

  • সুপ্রভাত মিশিগান ডেস্কঃ
  • ২০১৯-০৯-১৫ ০৩:৩১:২৪
image

ডিয়ারবর্ণ : ডিয়ারবর্ণে ডাকাতি ও হত্যার ঘটনায় তিন কিশোরের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছে পুলিশ। গত শুক্রবার (৬ সেপ্টেম্বর) এক বাড়িতে ডাকাতি এবং এক নারীকে (২৯) হত্যার অভিযোগ আছে তাদের বিরুদ্ধে। ওয়েন কাউন্টির প্রসিকিউটর কিম ওয়ার্দি অভিযোগ গঠন করেছেন। যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়েছে, তারা হলো-হাইল্যান্ড পার্কের জ্যামেল মারকুইজ ফিলসন (১৭), ডেট্রয়েটের ডিমাউরিও ডিসমিউক (১৪) এবং ১৩ বছর বয়সী এক কিশোর। তবে বিচারক সিদ্ধান্ত নেবেন কিশোরের বিরুদ্ধে শেষ পর্যন্ত অভিযোগ গঠন করা যাবে কিনা। যদি সে দোষী সাব্যস্ত হয় তাহলে সে কিশোর অপরাধে শাস্তি পাবে।
শুক্রবার (১৩ সেপ্টেম্বর) ডিয়ারবর্ণের নবম ডিস্ট্রিক্ট কোর্টের বিচারক মার্ক ডাব্লিউ সামারস বাকি দুইজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেন। তাদের রিমান্ডে নেওয়ার পর জেলে পাঠানো হয়েছে এবং ২০ সেপ্টেম্বর তাদেরকে আদালতে উপস্থাপন করা হবে। তিন জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা ২৯ বছর বয়সী নারী সাজা আলজানাবিকে হত্যা করেছে এবং গত ৬ সেপ্টেম্বর ডিয়ারবর্নের পূর্ব পাশে ডাকাতি করেছে। ফিলসনের বিরুদ্ধে সশস্ত্র ডাকাতি এবং হত্যার অভিযোগ আনা হয়েছে। ডিসমিউকের বিরুদ্ধে হত্যা, হত্যা চেষ্টা, ও সশস্ত্র ডাকাতির অভিযোগ আনা হয়েছে। এছাড়া আগ্নেয়াস্ত্র রাখার অপরাধেও অভিযুক্ত হতে পারে সে।
সাজা আলজানাবির ভাইবোনেরা আদালতে এসেছিলেন। বড় ভাই ওমর আলজানাবি অভিযুক্ত ফিলসন ও ডিসমিউকের দিকে তাকাচ্ছিলেন এবং অভিশাপ দিচ্ছিলেন। তখন অন্য ভাই আল  আনজানাবি তার মুখ চেপে ধরেন এবং ওমরকে আদালতেই বাইরে বলপূর্বক বের করে নিয়ে আসেন। ওমরের কাজের জন্য পরিবার আদালতে দু:খ প্রকাশ করে। আলী আনজানাবি বলেন, আমি তাদের মুখ দেখতে চাই না। তারাই আমার বোনকে শেষবার দেখেছে। তাদের আর সূর্যের আলোয় দেখতে চাই না আমরা। তিনি অভিযোগ করেন, ১৩ বছর বয়সী কিশোরও হত্যা করেছে। শুক্রবার  (৬ সেপ্টেম্বর) হত্যার শিকার হন সাজা আলজানাবি। সোমবার (৯ সেপ্টেম্বর) তাকে সমাধিস্ত করা হয়।

Source & Photo: http://detroitnews.com

 


এ জাতীয় আরো খবর