সোমবার, নভেম্বর ২৮, ২০২২

ওয়ারেনে বায়োলেটসের দ্বিতীয় বর্ষপূর্তিতে প্রবাসী নারী উদ্যোক্তাদের মিলনমেলা

  • তোফায়েল রেজা সোহেল:
image

ওয়ারেন, ০৪ নভেম্বর : মিশিগানে প্রবাসী নারী উদ্যোক্তাদের বৃহৎ সংগঠন বায়োলেটসের দ্বিতীয় বর্ষপূর্তি উদযাপন অনুষ্ঠানে নারী উদ্যোক্তাদের মিলনমেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত রোববার ওয়ারেন সিটির আড্ডা মিউজিক ক্যাফে অ্যান্ড রেস্টুরেন্টে আয়োজিত অনুষ্ঠানে মিশিগানের পাশাপাশি নিউইর্য়ক, টেক্সসাস ও নিউজার্সির অনেক নারী উদ্যোক্তারা অংশ নেন। অনুষ্ঠানে মিশিগানের প্রবাসী নারী ব্লগার ও ইউটিবারাও নাচে গানে আনন্দে মাতোয়ারা হন। 


দুপুরের দিকে কেক কেটে বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন বায়োলেটসের প্রতিষ্ঠাতা শারমিন তানিম। এরপর শুরু হয় এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সংগীত পরিবেশন করেন নিলুফা আক্তার নিতু, ইলিরা হুসাইন, ফারিন ফারিয়া, নাচ পরিবেশন করেন মহুয়া দাস সরকার, এঞ্জেলা খন্দকার, নিবেদীতা শেমি, সুচিতা মৌ, জিসা, ত্রিশা, সুরভীসহ আরো অনেকে। 


পারমিতা সিথী ও আফরিন মাহদীর প্রাণবন্ত সঞ্চালনায় এই আনন্দ আয়োজনের নাচ, গান, খোশগল্প আর হৈ-হুল্লোড় করে খানিকটা ক্লান্ত হলেও সবাই ঘরে ফিরেছেন ভালোলাগা নিয়েই।               


আমেরিকার মাটিতে বাংলাদেশি ঐতিহ্যবাহী পোষাক, সংস্কৃতি ও ঘরের তৈরি খাবার প্রদর্শনের মাধ্যমে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করছে নারী উদ্যোক্তাদের এই সংগঠন। শিক্ষিত বাংলাদেশি নারীরা নিজের মেধা ও প্রতিভাকে কাজে লাগিয়ে এগিয়ে চলেছেন। তাদের এই সৃজনশীল কার্ক্রমে যেমন দেশের অর্নীতিতে ভূমিকা রাখছে তেমনি বাংলাদেশি কমিউনিটিতেও তারা ব্যাপক প্রশংসিত হচ্ছেন।  


টেক্সাস থেকে ভায়োলেটসের আনন্দ আয়োজনে এসেছেন রুপারুর কর্ণধার নাফসিয়া মতিন মিলি। তিনি বলেন, ছোটবেলায় দেখতাম আমাদের মা খালারা শাড়ি-গহনা পড়ে সামাজিক অনুষ্ঠানে যেতেন। সেই থেকে আমারও ভালো লাগে। এই বিদেশে থাকলেও নিজের সংস্কৃতির ও ঐতিহ্যের পোশাকের চাহিদা পূরণে এই ব্যবসার সঙ্গে জড়িত হয়ে পড়ি। 


চিত্রপটের কর্ণধার প্রজ্ঞা পারমিতা ও রাহাত সুলতানা জানান, আমরা দুইজনেই পেশায় ইঞ্জিনিয়ার। আমরা সাংসারিক কাজ সামলিয়েই নিজেদের ভালোলাগা থেকেই অনলাইনে দেশীয় পোষাকের ব্যবসা করছি। বিশেষ করে দেশের তাঁতশিল্প একটা সময় মৃত অবস্থায় ছিল। দেশপ্রেম ও নিজেদের দায়িত্ববোধ থেকে দেশীয় কাপড় আমদানি করছি এবং তাঁত শিল্পের জন্য কিছুটা হলেও সহযোগিতা করতে পারছি। এজন্য আমরা আনন্দিত। 


ভায়োলেটসের প্রতিষ্ঠাতা শারমিন তানিম বলেন, মিশিগানের প্রবাসী নারীরা মাতৃভূমিতে উৎপাদিত পণ্য আমদানি করে ব্যবসা করছেন। নারীদের উৎসাহ-উদ্দীপণা দিয়ে থাকে ভায়োলেটস। মূলত তাদের ফোকাস করার জন্যই গঠন করা হয়েছে বায়োলেটস। নারীরা পেছনে থাকবো কেন ? আমরাও সমান তালে এগিয়ে যেতে চাই।

 

 

 


এ জাতীয় আরো খবর