মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২৬, ২০২১

হবিগঞ্জ পুলিশ সুপারের ব্যতিক্রম উদ্যোগ : ওয়াজ মাহফিলে অপরাধ বিষয়ে বক্তব্য বাধ্যতামূলক

  • মাধবপুর, (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি :
image

মাধবপুর, (হবিগঞ্জ) ৮ ডিসেম্বর : ওলামা মাশেকদের বয়ানে বয়ানে জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাস, মাদক, জুয়াসহ বিভিন্ন বিষয়ে ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকে প্রচারে ব্যতিক্রমি উদ্যোগ নিয়েছেন হবিগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্লাহ । সম্প্রতি জেলা পুলিশের আহ্বানে জেলার প্রতিটি উপজেলা থেকে ওলামা মাশায়েক, মাদ্রাসার শিক্ষক, শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে লেখা আহ্বান করা হয়। মাধবপুরের ৪৬ জনের নিকট থেকে লেখা পাওয়া যায়। এর মধ্যে ১৫ জনকে ধর্মীয় জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাস, মাদক, জুয়াসহ বিভিন্ন বিষয়ে বক্তব্য প্রদানের জন্য প্যানেল বক্তা  হিসেবে মনোনিত  করা হয়। 
শীত মৌসুমে বিভিন্ন স্থানে ওয়াজ মাহফিলের আয়োজন করা হয়। ওই সব ওয়াজ মাহফিলে নামিদামী বক্তারা ওয়াজ করেন। এতে বিপুল সংখ্যক ধর্মপ্রাণ মুসল্লির উপস্থিতি থাকে।  তাই ওই সব ওয়াজ মাহফিলে মানুষকে কোরআন হাদিসের আলোকে  সচেতন করতে পুলিশের পক্ষ থেকে এই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। মাধবপুর থানা পুলিশের উদ্যোগে বয়ানে বয়ানে জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে এ্যাসাইমেন্ট এ অংশগ্রহণকারীদের নিয়ে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্টিত হয়। থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ ইকবাল হোসেন এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহমুদুল হাসান। 


অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বলেন, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্লাহ (পিপিএম,বিপিএম) এর উদ্যোগে একটি ব্যতিক্রম র্মী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে।  শীত মৌসুমে বিভিন্ন অঞ্চলে ওয়াজ মাহফিল ও ইসলামী জলসার আয়োজন করা হয়ে থাকে। এখন থেকে ওয়াজ মাহফিল ও ইসলামী জলসা করতে হলে পুলিশের অনুমতি নিতে হবে। ওয়াজ মাহফিলে প্রধান বক্তার আগে প্যানেলে নির্বাচিত একজন জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাসবাদ, মাদক, জুয়াসহ বিভিন্ন বিষয়ের উপর কোরআন হাদিসের আলোকে অন্তত ২০ মিনিট করে বক্তব্য দিবেন। এতে করে সমাজে অপরাধ কমে আসবে বলে ধারণা করা হচেছ। 


এ জাতীয় আরো খবর