বুধবার, জুলাই ২৮, ২০২১

"আর নয় যুদ্ধ" গানে বিশ্বশান্তির আহ্বান

  • নিজস্ব প্রতিবেদক :
image

সিলেট, ১১ জুলাই : বিশ্বব্যাপী করোনা সংক্রমণে যখন দিশেহারা মানবসম্প্রদায়। একদিকে বেঁচে থাকার লড়াই, অন্যদিকে বড় হচ্ছে মৃত্যুর মিছিল। এই অস্থির সময়েও থেমে নেই একদল অশান্তিকামী মানুষের শক্তিমত্তা প্রদর্শন।  বিশ্বের বিভিন্নপ্রান্তে হামলা, লুটপাট হত্যা নির্যাতন বিষিয়ে তুলেছে মানবআত্মা। মানুষের অধিকার ও মানবতা আজ যখন পিশাচের যাতাকলে পিষ্ট। পরম করুনাময়ের কৃপায় একদিন জালিমের জুলুম থেমে যাবে, একদিন শান্তির পায়রা উড়বে আকাশে।

এই বিশ্বাস একটি আশা নিয়ে বেঁচে থাকে এই নিপীড়িত জনপদ। তখনই বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে বেজে ওঠে মানবতার জয়গান। আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রাম থেকে বিশ্বমানবতারক্ষা যত আন্দোলন হয়েছে তাতে প্রতিবাদী গান শিল্প সংস্কৃতির ভূমিকা অনেক। জালিমের অত্যাচার যতদিন চলবে শিল্পের বিভিন্ন মাধ্যমে এর প্রতিবাদ জানানো হবে।
এবার বাংলাদেশের ৫৬ হাজার বর্গমাইলের ভূখন্ড থেকে আবারও বিশ্বব্যাপী এই উৎপীড়ন আর অত্যাচারের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর আহ্বান জানানো হয়েছে গানে গানে।   " আর নয় যুদ্ধ" শিরোনামে একটি ব্যতিক্রমধর্মী গান  গত বৃহস্পতিবার ( ৮ জুলাই) সন্ধ্যায় স্টুডিও ওয়ালি ( Studio Wally) ইউটিউব  চ্যানেলে প্রকাশিত হয়। খ্যাতিমান আলোকচিত্রী  রাফায়াত খানের কথা ও সুরে এবং সৈয়দ ওয়ালি'র  সংগীত আয়োজনে গানটি গেয়েছেন সিলেটের সুপরিচিত সংগীতশিল্পী রেজওয়ান রাজ।
বিশ্বে চলমান যুদ্ধ আর নিপীড়নের বিরুদ্ধে, দুর্বলের উপরে ক্ষমতাধরদের অত্যাচারের বিরুদ্ধে এই গান। গানে গানে যুদ্ধ বিরতির আহ্বান জানিয়েছেন তারা। এব্যাপারে গানের গীতিকার ও সুরকার আলোকচিত্রী রাফায়াত খান বলেন,যখনি কোথাও যুদ্ধ হয়, যুদ্ধে'র খবর শুনি, মনটা ভীষণ ভাবে খারাপ হয়ে যায়, মনেহয় যেন আপন কাউকে হারাচ্ছি।  আমরা কেউই চাইনা , কোথাও যুদ্ধ হোক। হউক কোন অপমৃত্যু। সারাটা পৃথিবী জুড়ে যেন শান্তির বাতাস বয়ে যায় সবসময়, এই কামনায় এই আহ্বান নিয়ে যুদ্ধ বিষয়ভিত্তিক আমাদের নতুন  গানটি আশা করি ভালো লাগবে।
গানটির সংগীত আয়োজক সৈয়দ ওয়ালি বলেন,  সম- সাময়িক বিষয় নিয়ে গান, আর কথার আবেদনটা একটু বেশি থাকায় আমাদের এই কাজটি করা।
গানের শিল্পী রেজওয়ান রাজ বলেন, আর নয় যুদ্ধ,  আর নয় সংঘাত, আর নয় মৃত্যু , আর নয় চিৎকার / থামো থামো থামো, এই রক্তের মিছিল,সবই তো একই আকাশ তলে, তবু নিশ্চুপ অখিল। গানের এই কথাগুলো চোখের সামনে ভেসে উঠে সিরিয়া, ইয়েমেন ফিলিস্তিনসহ পৃথিবীর যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ ও অসহায় মানুষের আর্তচিৎকার। অনেকদিন ধরে এধরেনের একটি গান করার ইচ্ছে ছিলো। এই গানটি করতে পেরে অনেক ভালো লাগছে।
গানটির ইউটিউব লিংক: https://www.youtube.com/watch?v=-NI924ttmZc


 

এ জাতীয় আরো খবর